আজ- শনিবার, ২৩শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

রাজশাহীতে নির্মাণ হচ্ছে আরও পাঁচটি ফ্লাইওভার

topnews

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন মহানগরীর মেহেরচণ্ডি এলাকায় নির্মাণাধীন ফ্লাইওভারের কাজ প্রায় শেষের দিকে। খুব দ্রুতই এটির উদ্বোধনের কথা রয়েছে। এখন রাজশাহীতে আরও পাঁচটি ফ্লাইওভার নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) এগুলো নির্মাণ করবে।

নতুন পাঁচটি ফ্লাইওভারের মাধ্যমে রাজশাহী শহরের ভেতর দিয়ে ট্রেন চলাচল নির্বিঘ্ন করা হবে। ট্রেন ক্রসিংয়ের জন্য তখন আর সড়কে যানবাহনকে যানজটে আটকে থাকতে হবে না। ফ্লাইওভার পাঁচটি নির্মাণ কাজের কনসালটিং ফার্ম নিয়োগের জন্য ইতোমধ্যে রাসিক দরপত্র আহ্বান করেছে। খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে এ প্রক্রিয়া শেষ হবে বলে সংশ্লিষ্টরা আশা করছেন।

রাসিক সূত্রে জানা গেছে, নগরীর হড়গ্রাম নতুনপাড়া রেলক্রসিং, কোর্ট স্টেশন রেলক্রসিং, ভদ্রা রেলক্রসিং, শহীদ এএইচএম কামারুজ্জামান চত্বর এবং বর্ণালী মোড় রেলক্রসিং থেকে বন্ধগেট নতুন বিলশিমলা রেলক্রসিং পর্যন্ত ফ্লাইওভার নির্মাণ করা হবে। চারটি ফ্লাইওভারের দৈর্ঘ্য হবে ৪০০ থেকে ৫০০ মিটার। শুধু বন্ধগেট নতুন বিলশিমলা রেলক্রসিং পর্যন্ত ফ্লাইওভারটির দৈর্ঘ্য হবে প্রায় সোয়া কিলোমিটার।

গত ১৮ ফেব্রুয়ারি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় ‘রাজশাহী মহানগরীর সমন্বিত নগর উন্নয়ন’ শীর্ষক প্রায় তিন হাজার কোটি টাকার একটি প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। এ প্রকল্পে ১০৭ ধরনের কাজ করা হবে। এর মধ্যেই রয়েছে পাঁচটি ফ্লাইওভার।

রাসিকের প্রধান প্রকৌশলী খায়রুল বাশার বলেন, পাঁচটি ফ্লাইওভার নির্মাণের জন্য আমরা কনসালটিং ফার্ম নিয়োগ করতে যাচ্ছি। এ জন্য ইতোমধ্যেই দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে। গত ২৮ সেপ্টেম্বর দরপত্র দাখিল হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যেই কনসালটিং ফার্ম নিয়োগ হবে। এরপর তারা মাটি পরীক্ষা করবে, ডিজাইন করবে, ব্যয় নির্ধারণ হবে। তারপর ঠিকাদার নিয়োগ করে কাজ শুরু হবে। আগামী বছরের মধ্যেই নির্মাণ কাজ শুরু করার পরিকল্পনা রয়েছে।

উল্লেখ্য, রাজশাহী-নওগাঁ ও রাজশাহী-নাটোর চারলেন সড়ক নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় নগরীর মেহেরচণ্ডি-বুধপাড়া এলাকায় নির্মাণধীন ফ্লাইওভারের কাজ প্রায় শেষের দিকে। ২৯ কোটি ২৮ লাখ ৭৭ হাজার ৫৩২ টাকা ব্যয়ে নির্মিত হচ্ছে ফ্লাইওভারটি। এই ফ্লাইওভারের নিচ দিয়েও চলে গেছে রেললাইন। আরও পাঁচটি ফ্লাইওভার নির্মাণ হলে ট্রেন পারাপারের জন্য শহরের কোথাও মূল সড়কে যানবাহনকে দাঁড়িয়ে থাকতে হবে না। বাড়বে শহরের সৌন্দর্য্য।

elive

Read Previous

Help reader survey make mfs better with our reader

Read Next

আকবরকে পরামর্শ দেয়া পুলিশ কর্মকর্তার শাস্তি চান রায়হানের মা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *